সিলেটের এমসি কলেজের ছাত্রাবাসা স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণের মামলার ২নং আসামি ছাত্রলীগের কর্মী তারেক ইসলাম তারেককে ৫ দিনের রিমান্ডে পাঠিয়েছেন আদালত।

আজ (বুধবার) বিকালে সিলেটের চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে তাকে হাজির করে সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করে পুলিশ। শুনানি শেষে বিচারক আবুল কাশেম তাঁর পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। এর আগে দুপুরে গণধর্ষণের ঘটনায় গ্রেফতার ছাত্রলীগ কর্মী মাহফুজুর রহমান মাসুমেরও ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

রিমান্ডের বিষয়টি নিশ্চিত করে আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) সৈয়দ শামীম আহমদ জানান, রিমান্ড আবেদন শুনানিতে অন্য আসামিদের মতো তারেকুলের পক্ষেও কোনো আইনজীবী অংশ নেননি। বাদীপক্ষে স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে শতাধিক আইনজীবী অংশ নিলেও আসামিপক্ষে কোনো আইনজীবী অংশ নেননি।

পুলিশ জানায়, ধর্ষণকাণ্ডে জড়িত ব্যক্তিদের মধ্যে সর্বশেষ পর্যায়ে র‌্যাবের হাতে ধরা পড়েন তারেকুল। তিনি গ্রেপ্তার এড়াতে চুল–দাড়ি ফেলে সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে এক আত্মীয়ের বাড়িতে আশ্রয় নিয়েছিলেন। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়। বুধবার সকালে তাঁকে শাহপরান থানায় সোপর্দ করে র‌্যাব।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *